রবিবার ৮ ডিসেম্বর ২০১৯


ব্রাহ্মণপাড়ায় শাশুড়ির মামলায় যুবকের আত্মহত্যা


আমাদের কুমিল্লা .কম :
22.07.2019


ব্রাহ্মণপাড়া প্রতিনিধিঃ

শাশুড়ির দায়ের করা শিশু ও নারী নির্যাতন মামলার প্রধান আসামি ইলেক্ট্রিক মিস্ত্রি এক যুবক গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। কুমিল্লা জেলার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা সদর ইউনিয়নের আটকিল্লাপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পারিবারিক ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, উপজেলা সদর এলাকার আটকিল্লাপাড়া গ্রামের শহিদ মিয়ার ছেলে ইলেক্ট্রিক মিস্ত্রি সাইফুল ইসলাম (৩২) রবিবার সকাল ৮ টায় পাশের ঘরে ইলেক্ট্রিক কাজ করবে বলে ছোট বোনকে বাইর থেকে ঘর বন্ধ করে দিতে বলে। বেশ কিছু সময় অতিবাহিত হলেও সে ভিতর থেকে কোন সাড়া শব্দ না দেয়ায় বাড়ির লোকজন দরজা খুলে দেখে সে প্যান্টের কাপড়ের বেল্ট ব্যবহার করে ঘরের তীরের সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। পরিবারের লোকজন তাকে ঝুলন্ত অবস্থা থেকে নামিয়ে মধুমতি হাসপাতালে নিলে কর্তব্য ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ মর্গে প্রেরণ করে। এব্যাপারে নিহতের পিতা শহিদ মিয়া বাদী হয়ে থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা করেছে। এসআই তীথংকর দাস বলেন, নিহতের বিরুদ্ধে তার শাশুড়ি হেলেনা বেগম বাদী হয়ে মে মাসে একটি শিশু ও নারী নির্যাতন আইনে মামলা করেছিল। সে মামলায় সাইফুল এজাহারনামীয় প্রধান আসামি ছিল।