সোমবার ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০
  • প্রচ্ছদ » sub lead 3 » কুমিল্লায় যাত্রী-চালকের নিরাপত্তায় জেলা পুলিশের বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ


কুমিল্লায় যাত্রী-চালকের নিরাপত্তায় জেলা পুলিশের বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ


আমাদের কুমিল্লা .কম :
20.12.2019

মাহফুজ নান্টু। যাত্রীবাহী বাসে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তায় কুমিল্লা জেলা পুলিশ বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে দুইটায় নগরীর জাঙ্গালিয়া ও শাসনগাছায় যাত্রীবাহী বাসের ভেতরে সংশ্লিষ্ট বাসের নম্বর টানিয়ে দেয়া হয়। এতে সড়কে চলাচলরত কোন যাত্রীবাহী বাস ডাকাতি কিংবা ছিনতাইয়ের কবলে পড়লে ভেতরে থাকা যাত্রীরা যেন তাৎক্ষনিকভাবে জাতীয় জরুরী সেবায় ফোন করে ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়া গাড়ীর তথ্য দিতে পারে। এতে করে একদিকে চালকরা যেমন নির্বিঘেœ যাত্রী পরিবহনের কাজ করতে পারবেন অন্য দিকে সড়কে ছিনতাই-ডাকাতি শূণ্যর কোঠায় নিয়ে আসাও সম্ভব হবে।

বাসের ভেতর নম্বর টানানোর কার্যক্রম শেষে উপস্থিত বাস চালক-পরিবহন শ্রমিক নেতা সাধারণ মানুষের উদ্দেশ্যকুমিল্লা পুলিশ সুপার মো: সৈয়দ নুরুল ইসলাম বিপিএম (বার), পিপিএম বলেন, সাধারণত যাত্রীবাহী বাসের নম্বর প্লেট পেছনে থাকে। এতে করে সড়কে চলাচলরত যাত্রীবাহী বাস যদি ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়ে তাহলে বাসের ভেতরে থাকা যাত্রীরা তাদের ব্যবহৃত মুঠোফোনে বাসের নম্বরটি জাতীয় জরুরী সেবা বা নিকটস্থ পুলিশ কেন্দ্রে জানালে পুলিশ দ্রæত ছিনতাই কিংবা ডাকাতের কবলে থাকা গাড়ি উদ্ধারে সক্ষম হবে। এতে করে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যাবে-সড়ক ডাকাতিও শূন্যমাত্রায় নিয়ে আসা সম্ভব হবে।মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী,আইজিপি স্যার এবং চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি স্যারের নির্দেশনায় যাত্রী-চালকদের নিরাপত্তাজনিত আমাদের এই কার্যক্রম অব্যহত থাকবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা জেলা পুলিশের পদোন্নতি প্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো:আব্দুল্লাহ্ আল মামুন,মোহাম্মদ শাখাওয়াৎ হোসেন,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) আজিম-উল-আহসান,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান রাফি, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার প্রশান্ত পাল,ডিআইওয়ান মো:মাইন উদ্দিন খান,কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো:আনোয়ারুল হক,গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আনোয়ারুল আজিমসহ জেলা পুলিশের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ।কুমিল্লায় যাত্রী-চালকের নিরাপত্তায়
জেলা পুলিশের বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ
মাহফুজ নান্টু। যাত্রীবাহী বাসে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তায় কুমিল্লা জেলা পুলিশ বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।   বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে দুইটায় নগরীর জাঙ্গালিয়া ও শাসনগাছায় যাত্রীবাহী বাসের ভেতরে সংশ্লিষ্ট বাসের নম্বর টানিয়ে দেয়া হয়। এতে সড়কে চলাচলরত কোন যাত্রীবাহী বাস ডাকাতি কিংবা ছিনতাইয়ের কবলে পড়লে ভেতরে থাকা যাত্রীরা যেন তাৎক্ষনিকভাবে জাতীয় জরুরী সেবায় ফোন করে ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়া গাড়ীর তথ্য দিতে পারে। এতে করে একদিকে চালকরা যেমন নির্বিঘেœ যাত্রী পরিবহনের কাজ করতে পারবেন অন্য দিকে  সড়কে ছিনতাই-ডাকাতি শূণ্যর কোঠায় নিয়ে আসাও সম্ভব হবে।

বাসের ভেতর নম্বর টানানোর কার্যক্রম শেষে উপস্থিত বাস চালক-পরিবহন শ্রমিক নেতা সাধারণ মানুষের উদ্দেশ্যকুমিল্লা পুলিশ সুপার মো: সৈয়দ নুরুল ইসলাম বিপিএম (বার), পিপিএম বলেন, সাধারণত যাত্রীবাহী বাসের নম্বর প্লেট পেছনে থাকে। এতে করে সড়কে চলাচলরত যাত্রীবাহী বাস যদি ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়ে তাহলে বাসের ভেতরে থাকা যাত্রীরা তাদের ব্যবহৃত মুঠোফোনে বাসের নম্বরটি জাতীয় জরুরী সেবা বা নিকটস্থ পুলিশ কেন্দ্রে জানালে পুলিশ দ্রæত ছিনতাই কিংবা ডাকাতের কবলে থাকা গাড়ি উদ্ধারে সক্ষম হবে। এতে করে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যাবে-সড়ক ডাকাতিও শূন্যমাত্রায় নিয়ে আসা সম্ভব হবে।মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী,আইজিপি স্যার এবং চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি স্যারের নির্দেশনায় যাত্রী-চালকদের নিরাপত্তাজনিত  আমাদের এই কার্যক্রম অব্যহত থাকবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা জেলা পুলিশের পদোন্নতি প্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো:আব্দুল্লাহ্ আল মামুন,মোহাম্মদ শাখাওয়াৎ হোসেন,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) আজিম-উল-আহসান,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান রাফি, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার প্রশান্ত পাল,ডিআইওয়ান মো:মাইন উদ্দিন খান,কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো:আনোয়ারুল হক,গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আনোয়ারুল আজিমসহ জেলা পুলিশের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ।

কুমিল্লায় যাত্রী-চালকের নিরাপত্তায়
জেলা পুলিশের বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ
মাহফুজ নান্টু। যাত্রীবাহী বাসে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তায় কুমিল্লা জেলা পুলিশ বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। বৃহস্পতিবার বেলা পৌনে দুইটায় নগরীর জাঙ্গালিয়া ও শাসনগাছায় যাত্রীবাহী বাসের ভেতরে সংশ্লিষ্ট বাসের নম্বর টানিয়ে দেয়া হয়। এতে সড়কে চলাচলরত কোন যাত্রীবাহী বাস ডাকাতি কিংবা ছিনতাইয়ের কবলে পড়লে ভেতরে থাকা যাত্রীরা যেন তাৎক্ষনিকভাবে জাতীয় জরুরী সেবায় ফোন করে ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়া গাড়ীর তথ্য দিতে পারে। এতে করে একদিকে চালকরা যেমন নির্বিঘেœ যাত্রী পরিবহনের কাজ করতে পারবেন অন্য দিকে সড়কে ছিনতাই-ডাকাতি শূণ্যর কোঠায় নিয়ে আসাও সম্ভব হবে।

বাসের ভেতর নম্বর টানানোর কার্যক্রম শেষে উপস্থিত বাস চালক-পরিবহন শ্রমিক নেতা সাধারণ মানুষের উদ্দেশ্যকুমিল্লা পুলিশ সুপার মো: সৈয়দ নুরুল ইসলাম বিপিএম (বার), পিপিএম বলেন, সাধারণত যাত্রীবাহী বাসের নম্বর প্লেট পেছনে থাকে। এতে করে সড়কে চলাচলরত যাত্রীবাহী বাস যদি ছিনতাই কিংবা ডাকাতির কবলে পড়ে তাহলে বাসের ভেতরে থাকা যাত্রীরা তাদের ব্যবহৃত মুঠোফোনে বাসের নম্বরটি জাতীয় জরুরী সেবা বা নিকটস্থ পুলিশ কেন্দ্রে জানালে পুলিশ দ্রæত ছিনতাই কিংবা ডাকাতের কবলে থাকা গাড়ি উদ্ধারে সক্ষম হবে। এতে করে চালক-যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা যাবে-সড়ক ডাকাতিও শূন্যমাত্রায় নিয়ে আসা সম্ভব হবে।মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী,আইজিপি স্যার এবং চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি স্যারের নির্দেশনায় যাত্রী-চালকদের নিরাপত্তাজনিত আমাদের এই কার্যক্রম অব্যহত থাকবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা জেলা পুলিশের পদোন্নতি প্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো:আব্দুল্লাহ্ আল মামুন,মোহাম্মদ শাখাওয়াৎ হোসেন,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) আজিম-উল-আহসান,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান রাফি, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার প্রশান্ত পাল,ডিআইওয়ান মো:মাইন উদ্দিন খান,কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো:আনোয়ারুল হক,গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ আনোয়ারুল আজিমসহ জেলা পুলিশের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ।