শুক্রবার ২২ জানুয়ারী ২০২১
  • প্রচ্ছদ » sub lead 3 » লুঙ্গি পরে জরিব সরকার নিলেন সেরা রেমিট্যান্সের পুরস্কার


লুঙ্গি পরে জরিব সরকার নিলেন সেরা রেমিট্যান্সের পুরস্কার


আমাদের কুমিল্লা .কম :
19.12.2020

তৌহিদুর রহমান নিটল, ব্রাহ্মণবাড়িয়া:
‘এক কোটি ৪৫ লাখ ৪৫ হাজার ৯১১ টাকা রেমিট্যান্স এনে জেলায় সেরা হয়েছেন জরিব হোসেন সরকার’- মাইকে এমন ঘোষণার দিয়ে অতিথিদের কাছ থেকে ক্রেস্ট নিতে আহ্বান জানানো হয়। ক্রেস্ট নিতে আসা ব্যক্তিকে দেখে অনেকেই আবেগতাড়িত হলেন। জরিব হোসেন সরকার এলেন লুঙ্গি পরে।জরিব হোসেন সরকার সাদাসিধে মানুষ। বিশ্বাসীও বটে! চার ভাতিজা, চার ভাগ্নে, দুই ছেলে ইসলামী ব্যাঙ্কের মাধ্যমে তাঁর কাছে ইরাক থেকে টাকা পাঠিয়েছেন। জরিব হোসেনের বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলার চর ইসলামপুর গ্রামে। বললেন, ‘বাড়ির মুরুব্বি হিসেবে সবাই আমার কাছে টাকা পাঠায়।’‘মুজিববর্ষের আহ্বান, দক্ষ হয়ে বিদেশ যান’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে আন্তর্জাাতিক অভিবাসী দিবস উপলক্ষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে জরিব হোসেনসহ তিনজন সেরা রেমিট্যান্স গ্রহিতার হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়। অন্য দু’জন সেরা রেমিট্যান্স গ্রহণকারী হলেন, বাঞ্ছারামপুর উপজেলার রূপসদী মধ্যপাড়ার মো. বকুল মিয়া (এক কোটি ৪১ লাখ টাকা) ও বিজয়নগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাসিমা লুৎফুর রহমান (মোকাই আলী)। জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শুক্রবার আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়। সার্কিট হাউজ মিলনায়তনে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা খাঁন। অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. রুহুল আমিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল-মামুন সরকার, বিজয়নগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাসিমা লুৎফুর রহমান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ট্যাকনিকেল ট্রেনিং সেন্টারের (টিটিসি) অধ্যক্ষ মো. আক্তার হোসেন, সোনালী ব্যাংকের এজিএম মো. শরীফুল ইসলাম প্রমুখ।