মঙ্গল্বার ১৮ †g ২০২১
  • প্রচ্ছদ » sub lead 2 » মুরাদনগর -ইলিয়টগঞ্জ সড়ক আটটি বেইলি ব্রিজের দুর্ভোগে পাঁচ লক্ষাধিক মানুষ


মুরাদনগর -ইলিয়টগঞ্জ সড়ক আটটি বেইলি ব্রিজের দুর্ভোগে পাঁচ লক্ষাধিক মানুষ


আমাদের কুমিল্লা .কম :
18.03.2021

মহিউদ্দিন মোল্লা/এন এ মুরাদ।।
আটটি বেইলি ব্রিজের দুর্ভোগে পড়েছেন কুমিল্লার দাউদকান্দি ও মুরাদনগর উপজেলার পাঁচ লক্ষাধিক মানুষ। সব গুলো ব্রিজই বার্ধক্যে ধুঁকছে। মুরাদনগর থেকে দাউদকান্দিও ইলিয়টগঞ্জ পর্যন্ত ১২কিলোমিটার সড়কে ব্রিজ গুলোর অবস্থান।
সূত্রমতে, মুরাদনগর থেকে দাউদকান্দি ব্রিজ গুলো হচ্ছে মুরাদনগর সদরে গোমতী নদীর উপর ব্রিজ,চালিয়া কান্দি গ্রামের দুইটি,ভোরার চর,নেয়ামতকান্দি, পাঁচ পুকুরিয়া,জাহাপুর এলাকার ব্রিজ। তার মধ্যে গোমতী নদীর উপর ব্রিজটি দীর্ঘদিন ধরে বেহাল। এটি জোড়াতালি দিয়ে চলছে ১৮ বছর। প্রায়ই ব্রিজের ভাঙা পাটাতনে গাড়ির চাকা আটকে যায়। সৃষ্টি হয় দীর্ঘ যানজট। ভোগান্তিতে পড়ে যাত্রীরা। সম্প্রতি জেলা সড়ক ও জনপথ বিভাগ এই ব্রিজের দুইপাশে লোহার পাইপ দিয়ে গেইট করে দিয়েছে। যাতে ভারী ও মাঝারি যানবাহন চলতে না পারে। এছাড়া যান চলাচলে ব্রিজের গোড়ায় প্রায় বিকট শব্দ হচ্ছে। এতে আতংক দিন কাটে চালক ও যাত্রীদের মাঝে।
স্থানীয় সিএনজি অটো রিকশা চালক কাসেম মিয়া জানান,ব্রিজ ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় এই সড়কে যাত্রী কমে গেছে। আমরা ব্রিজের উপর দিয়ে দোয়া কালাম পড়ে চলাচল করি।
স্থানীয় কলেজ শিক্ষক আজিজুর রহমান রনি বলেন, মুরাদনগর সদরের গোমতী নদীর উপরের বেইলি ব্রিজটি দীর্ঘদিন ধরে বেহাল। এতে মুরাদনগর থেকে ঢাকাগামী বাস এবং গ্যাস ফিল্ডের বড় ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহন ১০ কিলোমিটার ঘুরে বিকল্প পথ চলাচল করছে। এই স্থানে দ্রুত নতুন ব্রিজ না করলে যে কোন সময় এটি ধ্বসে গিয়ে বড় দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। আমরা আটটি বেইলি ব্রিজের স্থলে নতুন আরসিসি গার্ডার ব্রিজ চাই।
সওজ কুমিল্লা কার্যালয়ের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. রেজা-ই রাব্বি বলেন, কুমিল্লা সড়ক সার্কেলের আওতায় থাকা মুরাদনগর সদরসহ মুরাদনগর-ইলিয়টগঞ্জ-ঢাকা সড়কের দক্ষিণ অঞ্চলের আটটি বেইলি সেতু বেশ পুরনো হয়ে গেছে। সেগুলো ঝুঁকিতে রয়েছে। এ বেইলি সেতুগুলো স্থায়ী পাকা সেতু করার জন্য অনুমোদন চেয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন জানানো হয়েছে।