মঙ্গল্বার ১৮ †g ২০২১


নগরীর মাছ বাজারে মানুষের জটলা


আমাদের কুমিল্লা .কম :
15.04.2021

আবু সুফিয়ান রাসেল।।
কুমিল্লায় নিত্যপণ্যের বাজারে মানুষের জটলা দেখা গেছে। কাঁচাবাজার থেকেও মানুষ বেশি রাজগঞ্জ ও বাদশা মিয়ার মাছ বাজারে। মূল সড়কে ১৩টি গুরুত্বপূর্ণ স্থানে ব্যারিকেড। নানা অজুহাতে বাজারে প্রবেশ করছেন মানুষ।
সূত্রমতে, কুমিল্লা নগরীর ১৩টি গুরুত্বপূর্ণ স্থানে বাঁশ দিয়ে ব্যারিকেড তৈরি করেছে প্রশাসন। অপ্রয়োজনে বের হলে, পাঠানো হচ্ছে বাসায়। বাড়াবাড়ি করলে গুণতে হচ্ছে জরিমানা। তবুও সড়কে মানুষ। গতকাল থেকে আজ মানুষের চলাফেরা বেড়েছে।কাঁচাবাজারে প্রচুর মানুষের সমাগত দেখা গেছে। তবে বেশী মানুষ, মাছ বাজারে।রাজগঞ্জ বাজারের মাছ ব্যবসায়ী খলিলুর রহমান বলেন, মাছ বিক্রি না করলে নষ্ট হয়ে যাবে। তাই রাতে চাঁদপুর থেকে কুমিল্লা মাছ নিয়ে এসেছি। বৈশাখী বেচাকেনা নেই। আপনার মাস্ক নেই কেনো? এমন প্রশ্নে খলিলুর রহমান পকেট থেকে মাস্ক বের করে বলেন, মাস্ক আছে। মাস্ক পড়ে কথা বললে, মানুষ শুনে না। মাছ বাজারে আওয়াজ বেশী।
দৈনিক রাজগঞ্জ বাজার সমিতির সদস্য ও আল্লাহর দান মাৎস আড়ৎ এর মালিক মো. সুমন মিয়া বলেন,আমরা সরকারের সকল নিয়ম মেনে ব্যবসা করি।খোলা মাঠে দোকান স্থানান্তর করেছি।আমার দোকানের সকলকে মাস্ক কিনে দিছে। ক্রেতারা যারা আসে, তারা জটলা বাঁধে। নিয়ম মানে না।কুমিল্লা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ কামরুন হাসান বলেন, লকডাউন বাস্তবায়নে ১৩টি স্থানে প্রশাসনের অবস্থান রয়েছে। ভ্রাম্যমাণ আদালের ৪টি টিম আছে। গতকাল ২১ টি মামলায় ২৮ হাজার ৫শ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আজও অভিযান চলছে। কুমিল্লার ১৭টি উপজেলায় লকডাউন বাস্তবায়নে মাঠে কাজ করছে।