শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১
Space Advertisement
Space For advertisement
  • প্রচ্ছদ » sub lead 3 » কুমিল্লায় নারী কাউন্সিলরের করোনা টিকা পুশ, ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ


কুমিল্লায় নারী কাউন্সিলরের করোনা টিকা পুশ, ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ


আমাদের কুমিল্লা .কম :
21.08.2021

আবদুর রহমান।।
কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের (কুসিক) সংরক্ষিত কাউন্সিলর নাদিয়া নাসরিন তাঁর কার্যালয়ে ১০০ জনকে করোনার টিকা পুশ করেছিলেন। কাউন্সিলের টিকা পুশ করার ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে বিষয়টি নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়। পরে এ ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠন করে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।এদিকে এ ঘটনায় ওই টিকা কেন্দ্রের সুপারভাইজার মো.মুজিবুর রহমান ও অভিযুক্ত কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সুপারিশ করেছেন গঠিত তদন্ত কমিটি। শনিবার জেলা সিভিল সার্জন ডা. মীর মোবারক হোসাইন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
গত বৃহস্পতিবার দুপুরে সিটি করপোরেশনের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার বিভাগে ওই তদন্ত প্রতিবেদন পাঠানো হয়। এছাড়া স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালককেও প্রতিবেদনের বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে।
ডা. মীর মোবারক হোসাইন বলেন, কাউন্সিলর ও টিকা কেন্দ্রের সুপারভাইজার এ ঘটনার জন্য দায়ী। স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় এ ব্যাপারে ব্যবস্থা নেবে। আমাদের তদন্ত শেষে প্রতিবেদন সিটি করপোরেশনকে দেওয়া হয়, তাঁরা সেটি মন্ত্রণালয়ে পাঠায়। আমাদের ডিজি মহোদয়কেও বিষয়টি অবহিত করেছি। আশা করছি দ্রুত জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, গত ৯ আগস্ট কুমিল্লা সিটি করপোরেশনর হারুন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে সরকার দলীয় কিছু লোক আগেভাগে নিজেদের পরিচিতদের টিকা দেওয়ার চেষ্টা করেন। এতে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়। হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে ওই কেন্দ্রে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়। শেষ পর্যন্ত কেন্দ্রটি বন্ধ হয়ে যায়। এ সময় কাউন্সিলর নাদিয়া নাসরিন বেশ কয়েকটি টিকার ভায়েল ও বেশ কিছু বিশেষ সিরিঞ্জ নিয়ে টিকাকেন্দ্রের অদূরে তাঁর নিজের বাড়ির সামনের কার্যালয়ে চলে যান। নাদিয়া নাসরিন কুসিকের ৪, ৫ ও ৬ ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর।
এদিকে টিকা প্রয়োগের বিষয়টি স্বীকার করেছেন কাউন্সিলর নাদিয়া নাসরিন। তিনি বলেন, ওইদিন টিকাকেন্দ্রে ঝামেলা হয়। এরপর টিকা দেওয়া বন্ধ হয়ে যায়। তিনি টিকাগুলো তাঁর কার্যালয়ে নিয়ে আসেন। অতীতে তার টিকা দেওয়ার প্রশিক্ষণ ও সনদ রয়েছে। তাই তিনি নিজেই টিকা প্রয়োগ করেছেন। তবে এতে কারও কোনো অসুবিধা হয়নি বলে দাবি করেন তিনি।